শিরোনাম :
পরীক্ষা চলবে সাত কলেজে: শিক্ষামন্ত্রী আজিমপুর গোরস্থানে চিরনিদ্রায় সৈয়দ আবুল মকসুদ নারায়ণগঞ্জের পাবলিক প্রসিকিউটর ওয়াজেদ আলী দম্পতির বিরুদ্ধে দুদকের ২ মামলা সিটিতে অনুমতিবিহীন সব গৃহায়ন প্রকল্প বন্ধের নির্দেশ ডিএসসিসির মেয়রের ৯ মার্চ, দুদকের মামলায় হাজী সেলিমের ১৩ বছরের সাজা বাতিলের আবেদনের রায় হাইকোর্টে আজিজ কো-অপারেটিভকে ১০ লাখ টাকা জরিমানা ১৭ বার পিছিয়েছে চুড়িহাট্টায় অগ্নিকাণ্ডের মামলার তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল, নতুন তারিখ ৫ এপ্রিল ধার্য ডিএসসিসির সাবেক মেয়র খোকন ও ইউসুফ আলী সরদারের বিরুদ্ধে দেলুর মামলার প্রতিবেদন দাখিল ৩ মার্চ আল জাজিরায় প্রকাশিত প্রতিবেদন , সামিসহ ৪জনের বিরুদ্ধে মামলা বিচারিক আদালত গ্রহণ করেনি নেদারল্যান্ডস আওয়ামী যুবলীগের উদ্যোগে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত এপ্রিলের শুরুতেই ঘাটারচর থেকে কাঁচপুর রুটে বাস চালুর ঘোষণা ডিএসসিসির মেয়রের হাইকোর্ট,২৫ ফেব্রুয়ারি.গভর্নর ও দুদক চেয়ারম্যানের পরামর্শ নিবেন বিআইএফসি. ইন্টারন্যাশনাল লিজিং. পিপলস লিজিং’র অনিয়ম অনুসন্ধানের কমিটি পুনর্গঠন হাইকোর্টের ডিএনসিসি, হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরকে মশা নিধনের মেশিন দিয়েছে ‘আল জাজিরার প্রতিবেদন, সংশ্লিষ্ট ১১ জনের বিরুদ্ধে অধিকতর তদন্ত ১০ মার্চের মধ্যে দাখিল’ অর্থ পাচার ও তথ্য জালিয়াতি, পিপলস লিজিংয়ের শুনানিকালে: বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিচালককে যা বললেন হাইকোর্ট প্লট বরাদ্দের মামলা বাতিলে মির্জা আব্বাসের আবেদন খারিজ আপিল বিভোগে লক্ষ্মীপুর-২ আসনের এমপি পাপুলের পদ শূন্য ঘোষণা ক্রিকেটার নাসির প্রসঙ্গ: ডিজিটাল বিয়ে ও বিচ্ছেদ চালু করতে সরকারকে নোটিশ ‘এমপি পাপুলের আসন শূন্য ঘোষণার এখতিয়ার স্পিকারের’
বৃহস্পতিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২১, ০৭:৪৫ পূর্বাহ্ন

হাইকোর্টের রুল: ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের দুটি ধারা কেন অসাংবিধানিক নয়

দূরবীণ নিউজ প্রতিবেদক :
সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগ জানতে চেয়েছেন ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন-২০১৮ এর ২৫ ও ৩১ ধারা কেন অবৈধ ও অসাংবিধানিক ঘোষণা করা হবে না । সোমবার (২৪ ফেব্রুয়ারি ) এক রিট আবেদনের প্রাথমিক শুনানি করে বিচারপতি শেখ হাসান আরিফ ও বিচারপতি মোঃ মাহমুদ হাসান তালুকদারের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এ রুল জারি করেন।

আইন সচিব, তথ্য সচিবসহ সরকারের সংশ্লিষ্টদেও চার সপ্তাহের মধ্যে এ রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে বলে জানিয়েছেন রিটের পক্ষে শুনানি করা আইনজীবী মোহাম্মদ শিশির মনির।

এর আগে, গত ১৯ জানুয়ারি বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে) মহাসচিব মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ, সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী মোঃ আসাদ উদ্দিন, মোঃ আসাদুজ্জামান, মোঃ জোবাইদুর রহমান, মোঃ মহিউদ্দিন মোল্লা ও মোঃ মুজাহিদুল ইসলাম, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সহযোগী অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ ইসমাইল, ড. মোঃ কামরুজ্জামান ও ড. মোঃ রফিকুল ইসলাম এ রিট করেন।

রিটে চারটি ধারা (২৫, ২৮, ২৯ ও ৩১ ধারা) চ্যালেঞ্জ করা হয়। আইনের এই ধারাগুলো সংবিধানের ৩১ ও ৩৯ অনুচ্ছেদের সাথে সাংঘর্ষিক বলেও উল্লেখ করা হয় রিটে। আদালত শুনানি নিয়ে ২৫ ও ৩১ ধারার বিষয়ে রুল জারি করেন।

আক্রমণাত্মক, মিথ্যা বা ভীতি প্রদর্শক, তথ্য-উপাত্ত প্রেরণ, প্রকাশ, ইত্যাদি সংক্রান্ত ২৫ ধারার (১) উপধারায় বলা হয়েছে ‘যদি কোনো ব্যক্তি ওয়েবসাইট বা অন্য কোনো ডিজিটাল মাধ্যমে,-(ক) ইচ্ছাকৃতভাবে বা জ্ঞাতসারে, এমন কোনো তথ্য-উপাত্ত প্রেরণ করেন, যাহা আক্রমণাত্মক বা ভীতি প্রদর্শক অথবা মিথ্যা বলিয়া জ্ঞাত থাকা সত্ত্বেও, কোনো ব্যক্তিকে বিরক্ত, অপমান, অপদস্থ বা হেয় প্রতিপন্ন করিবার অভিপ্রায়ে কোনো তথ্য-উপাত্ত প্রেরণ, প্রকাশ বা প্রচার করেন, বা (খ) রাষ্ট্রের ভাবমূর্তি বা সুনাম ক্ষুণ্ণু করিবার, বা বিভ্রান্তি ছড়াইবার, বা তদুদ্দেশ্যে, অপপ্রচার বা মিথ্যা বলিয়া জ্ঞাত থাকা সত্ত্বেও, কোনো তথ্য সম্পূর্ণ বা আংশিক বিকৃত আকারে প্রকাশ, বা প্রচার করেন বা করিতে সহায়তা করেন, তাহা হইলে উক্ত ব্যক্তির অনুরূপ কার্য হইবে একটি অপরাধ।

এ ধারার (২) উপধারায় বলা হয়েছে, ‘যদি কোনো ব্যক্তি উপ-ধারা (১) এর অধীন কোনো অপরাধ সংঘটন করেন, তাহা হইলে তিনি অনধিক ৩ (তিন) বছর কারাদণ্ড, বা অনধিক ৩ (তিন) লাখ টাকা অর্থদণ্ড, বা উভয় দণ্ডে দণ্ডিত হবেন।

উপধারা (৩) এ বলা হয়েছে, ‘যদি কোনো ব্যক্তি উপ-ধারা (১) এ উল্লিখিত অপরাধ দ্বিতীয়বার বা পুনঃপুন সংঘটন করেন, তাহা হইলে তিনি অনধিক ৫ (পাঁচ) বছর কারাদণ্ড, বা অনধিক ১০ (দশ) লাখ টাকা অর্থদণ্ড, বা উভয় দণ্ডে দণ্ডিত হবেন।

আইন-শৃঙ্খলার অবনতি ঘটানো, ইত্যাদির অপরাধ ও দণ্ড সংক্রান্ত ৩১ ধারার (১) উপধারায় বলা হয়েছে, ‘যদি কোনো ব্যক্তি ইচ্ছাকৃতভাবে ওয়েবসাইট বা ডিজিটাল বিন্যাসে এমন কিছু প্রকাশ বা সম্প্রচার করেন বা করান, যাহা সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন শ্রেণি বা সম্প্রদায়ের মধ্যে শত্রুতা, ঘৃণা বা বিদ্বেষ সৃষ্টি করে বা সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্ট করে বা অস্থিরতা বা বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে অথবা আইন-শৃঙ্খলার অবনতি ঘটায় বা ঘটিবার উপক্রম হয়, তাহা হইলে উক্ত ব্যক্তির অনুরূপ কার্য হইবে একটি অপরাধ।

উপধারা (২)-এ বলা হয়েছে, যদি কোনো ব্যক্তি উপ-ধারা (১) এর অধীন কোনো অপরাধ সংঘটন করেন, তাহা হইলে তিনি অনধিক ৭ (সাত) বছর কারাদণ্ড, বা অনধিক ৫ (পাঁচ) লাখ টাকা অর্থদণ্ড, বা উভয় দণ্ডে দণ্ডিত হবেন।

উপধারা (৩)-এ বলা হয়েছে, যদি কোনো ব্যক্তি উপ-ধারা (১) এ উল্লিখিত অপরাধ দ্বিতীয় বার বা পুনঃপুন সংঘটন করেন, তাহা হইলে তিনি অনধিক ১০ (দশ) বছর কারাদণ্ড, বা অনধিক ১০ (দশ) লাখ টাকা অর্থদণ্ড, বা উভয় দণ্ডে দণ্ডিত হবেন। # সূত্র : ইউএনবি


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


অনুসন্ধান

করোনা আপডেট

বাংলাদেশে

আক্রান্ত
সুস্থ
মৃত্যু
সূত্র: আইইডিসিআর

বিশ্বে

আক্রান্ত
সুস্থ
মৃত্যু

.