সর্বশেষঃ
আজ আন্তর্জাতিক কাস্টমস দিবস উদযাপন করছে বাংলাদেশ ফেরির ফগ লাইট ক্রয়ে অর্থ আত্মসাৎ:বিআইডব্লিউটিসির সাবেক ম্যানেজারের জামিন আবেদন খারিজ জিআইএস ম্যাপ অনুযায়ী নগরীর প্রত্যেকটি খালই‌ উদ্ধার করা হবে: ডিএনসিসির মেয়র ৩০ জুনের মধ্যে নগরীর ঝুলন্ত তার অপসারণ করতে হবে: ডিএনসিসি মেয়র আতিকুল ইসলাম রাজধানীর সকল খাল দখলমুক্ত করা হবে: স্থানীয় সরকার মন্ত্রী চট্টগ্রামের ধানের কুড়া মিশিয়ে হলুদ, মরিচ, ধনিয়ার মসলা তৈরির কারখানায় র‌্যাবের অভিযান সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান দুই সপ্তাহ বন্ধ: স্বাস্থ্যমন্ত্রী আবার শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধসহ বিধি-নিষেধ জারি জীবন বীমার এমডি জহুরুল হকসহ ২ জনের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা জেলা প্রশাসক জানেন তার অফিসে কোথায় দুর্নীতি হয়: দুদক চেয়ারম্যান
বুধবার, ২৬ জানুয়ারী ২০২২, ১১:২৯ পূর্বাহ্ন

ডিএনসিসির ৩য় পর্যায়ের চিরুনি অভিযানের দ্বিতীয় দিনে ৮২টি স্থাপনায় এডিসের লার্ভা শনাক্ত

দূরবীণ নিউজ প্রতিবেদক :
এডিস মশা নিয়ন্ত্রণে ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনে (ডিএনসিসি) বিশেষ পরিচ্ছন্নতা অভিযান (চিরুনি অভিযান) চালিয়ে যাচ্ছে।
রোববার (৯ আগস্ট) তৃতীয় পর্যায়ের চিরুনি অভিযানের দ্বিতীয় দিনে ডিএনসিসির ৫৪টি ওয়ার্ডে ১৩ হাজার ৩৮৪ টি বাড়ি, স্থাপনা, নির্মাণাধীন ভবন পরিদর্শন করা হয়। এরমধ্যে ৮২ টিতে এডিস মশার লার্ভা পাওয়া যায়।

এছাড়া ৭ হাজার ৪৬৮ টি বাড়ি/স্থাপনায় এডিস মশা বংশবিস্তার উপযোগী পরিবেশ পাওয়া গেলে সেসকল স্থানে কীটনাশক প্রয়োগ করা হয়েছে। এসময় ৪৮ টি মামলায় মোট ১ লাখ ৮ হাজার ১০০টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে এবং অন্যান্য বাড়ি ও স্থাপনার মালিককে সতর্ক করা হয়েছে। ডিএনসিসির জনসংযোগ বিভাগ গণমাধ্যমকে এই তথ্য জানায়।

রোববার উত্তরা অঞ্চল-১ এর অধীনে মোট ১হাজার ২৭৭ টি বাড়ি ও স্থাপনা পরিদর্শন করে ১৪ টিতে এডিস মশার লার্ভা পাওয়া গেলে ৪টি মামলায় মোট ২৮ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়। এছাড়া ১হাজার ২৪টি বাড়ি/ স্থাপনায় এডিস মশার প্রজনন উপযোগী পরিবেশ পাওয়া যায়।

মিরপুর অঞ্চল-২ এর অধীনে মোট ২হাজার ৬৮৭টি বাড়ি ও স্থাপনা পরিদর্শন করে ১টিতে এডিস মশার লার্ভা পাওয়া যায় এবং ৩১১ টি বাড়ি/ স্থাপনায় এডিস মশার প্রজনন উপযোগী পরিবেশ পাওয়া যায়। এসময়ে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে বাসার বাহিরে মাস্ক ব্যাবহার না করার অপরাধে ২৫টি মামলায় মোট ২ হাজার ৬০০ টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে এবং করোনা প্রতিরোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার নির্দেশ প্রদান করা হয়েছে।

মহাখালী, অঞ্চল-৩ এর অধীনে মোট ১ হাজার ৫৭৫ টি বাড়ি/স্থাপনা পরিদর্শন করে ৩৭ টিতে এডিস মশার লার্ভা পাওয়া যায় এবং ৯৪৮টি বাড়ি/ স্থাপনায় এডিস মশার প্রজনন উপযোগী পরিবেশ পাওয়া যায়। এসময়ে ৬টি মামলায় মোট ৩৩ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়।

মিরপুর ১০, অঞ্চল-৪ এর অধীনে মোট ১হাজার ৪৫২টি বাড়ি/স্থাপনা পরিদর্শন করে ৭টিতে এডিস মশার লার্ভা পাওয়া যায়, তবে কোন জরিমানা করা হয়নি। এছাড়া ৬৬৬টি বাড়ি/স্থাপনায় এডিস মশার প্রজনন উপযোগী পরিবেশ পাওয়া যায়।

কারওয়ান বাজার, অঞ্চল-৫ এর অধীনে মোট ২ হাজার ৩৩৯টি বাড়ি/স্থাপনা পরিদর্শন করে ৫টিতে এডিস মশার লার্ভা পাওয়া যায়। এছাড়া ১ হাজার ৮৪১টি বাড়ি/ স্থাপনায় এডিস মশার প্রজনন উপযোগী পরিবেশ পাওয়া যায়। এসময়ে ১টি মামলায় ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয় এবং ২টি নিয়মিত মামলার ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়।

হরিরামপুর, অঞ্চল-৬ এর অধীনে মোট ১হাজার ১৩৪ টি বাড়ি ও স্থাপনা পরিদর্শন করে ৮টিতে এডিস মশার লার্ভা পাওয়া গেলে ৫টি মামলায় মোট ২১হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়। এছাড়া ৭৪০ টি বাড়ি/ স্থাপনায় এডিস মশার প্রজনন উপযোগী পরিবেশ পাওয়া যায়।

দক্ষিণখান অঞ্চল-৭ এর অধীনে মোট ৯২৮টি বাড়ি ও স্থাপনা পরিদর্শন করে ৪ টিতে এডিস মশার লার্ভা পাওয়া যায়। এছাড়া ৭১০টি বাড়ি/স্থাপনায় এডিস মশার প্রজনন উপযোগী পরিবেশ পাওয়া যায়।

উত্তরখান অঞ্চল-৮ এর অধীনে মোট ৭৪৮ টি বাড়ি/স্থাপনা পরিদর্শন করে ৩টি স্থাপনায় এডিস মশার লার্ভা পাওয়া গেলে ৬টি মামলায় ১৩হাজার ৫শত টাকা জরিমানা আদায় করা হয়। এছাড়া ৪৬৮ টি বাড়ি/ স্থাপনায় এডিস মশার প্রজনন উপযোগী পরিবেশ পাওয়া যায়।

ভাটারা অঞ্চল-৯ এর অধীনে মোট ৪৯৯ টি বাড়ি/স্থাপনা পরিদর্শন করে ২ টিতে এডিস মশার লার্ভা পাওয়া যায়, এসময়ে ১টি মামলায় ৫হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়। এছাড়া ২৯৯ টি বাড়ি/ স্থাপনায় এডিস মশার প্রজনন উপযোগী পরিবেশ পাওয়া যায়।

সাঁতারকুল অঞ্চল-১০ এর অধীনে মোট ৭৪৫টি বাড়ি/স্থাপনা পরিদর্শন করে ১টিতে এডিস মশার লার্ভা পাওয়া যায়। এছাড়া ৫৩১টি বাড়ি/ স্থাপনায় এডিস মশার প্রজনন উপযোগী পরিবেশ পাওয়া যায়। উল্লিখিত সকল সম্ভাব্য এডিস মশার প্রজন স্থলে পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রম পরিচালনাপূর্বক কীটনাশক ছিটানো হয়েছে এবং জনসাধারণকে এবিষয়ে পরবর্তীতে সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে।

তৃতীয় ধাপে চিরুনি অভিযান পরিচালনার লক্ষ্যে এবারও প্রতিটি ওয়ার্ডকে ১০টি সেক্টরে ভাগ করে প্রতিটি সেক্টরকে ১০টি সাবসেক্টরে ভাগ করা হয়েছে। প্রতিদিন প্রতিটি ওয়ার্ডের ১টি সেক্টরে অর্থ্যাৎ ১০টি সাবসেক্টরে চিরুনি অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে। দীর্ঘমেয়াদি ও আধুনিক মশক নিধন ব্যবস্থাপনার অংশ হিসাবে বিগতবারের ন্যায় এবারও এডিসের লার্ভা প্রাপ্তির স্থানসমূহ এবং প্রজনন উপযোগী পরিবেশসমূহের তথ্য অ্যাপে সংরক্ষণ করে ডাটাবেজ তৈরি করা হচ্ছে।

তৃতীয় পর্যায়ের অভিযানের এই দুই দিনে মোট ২৬ হাজার ১২০টি বাড়ি/স্থাপনা পরিদর্শন করে ১৬৯ টিতে এডিস মশার লার্ভা পাওয়া যায় এবং দুই দিনে মোট ২লক্ষ ৩৬ হাজার ৭০০টাকা জরিমানা করা হয়। এডিস মশা নিয়ন্ত্রণের মাধ্যমে নগরবাসীকে ডেঙ্গু থেকে সুরক্ষা দিতে ডিএনসিসির চিরুনি অভিযান আগামীকালও অব্যাহত থাকবে। # প্রেস বিজ্ঞপ্তি ।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


অনুসন্ধান

নামাজের সময়সূচী

  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৫:২৭ পূর্বাহ্ণ
  • ১২:১৪ অপরাহ্ণ
  • ৪:০৩ অপরাহ্ণ
  • ৫:৪৩ অপরাহ্ণ
  • ৭:০০ অপরাহ্ণ
  • ৬:৪১ পূর্বাহ্ণ

অনলাইন জরিপ

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘বিএনপি এখন লিপসার্ভিসের দলে পরিণত হয়েছে।’ আপনিও কি তাই মনে করেন? Live

  • হ্যাঁ
    33% 2 / 6
  • না
    66% 4 / 6