সর্বশেষঃ
২৫ মে বঙ্গবাজার বিপনী বিতান নির্মাণ কাজের উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী পানি উন্নয়ন বোর্ডের প্রকৌশলী ও ঠিকাদারের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা অপকর্ম আড়াল করতে সরকারের জুলুম বাড়ছে: বিএনপি মহাসচিব ঢাকায় ব্যাটারিচালিত রিকশা চলবে: প্রধানমন্ত্রী ইরানে পাঁচদিনের শোক ঘোষণা ইরানের জনপ্রিয়  প্রেসিডেন্ট  ইব্রাহিম রইসি, পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও অন্যদের লাশ উদ্ধার নেত্রকোনায় দুই দিন ব্যাপী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মেলার উদ্বোধন  অনুমোদনহীন ড্রিংকস উৎপাদন ও বিক্রি; একমি.প্রাণ.দেশবন্ধু.আকিজসহ ৫ মালিককে আদালতে তলব এডিসের লার্ভা পেলে ছাড় দেওয়া হবে না: মেয়র আতিক কুড়িগ্রামে ফিলিস্তিন রাষ্ট্রের সমর্থেে ছাত্র সমাবেশ
শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ০৭:৫৩ অপরাহ্ন

চুপ কইরা সহ্য করি বইলা দুর্বল ভাইবো না: ডিএসসিসি মেয়র

দূরবীণ নিউজ প্রতিবেদক:
ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের (ডিএসসিসি) মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস বলেছেন, চুপ কইরা সহ্য করি বইলা দুর্বল ভাইবো না। তিনি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য ভাঙচুর ও এই ভাঙচুরে উস্কানিদাতাদেরকে উদ্দেশ্য করে এই হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেছেন।

বুধবার ( ১৬ ডিসেম্বর) বিকেলে নগর ভবনের মেয়র হানিফ অডিটোরিয়ামে আয়োজিত ৪৯তম বিজয় দিবসের আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে ষড়যন্ত্রকারীদের বিরুদ্ধে এই সতর্ক বার্তা দেন।

ডিএসসিসি মেয়র ব্যারিস্টার শেখ তাপস এ সময় বলেন, শান্তিকামী বাঙালি এক ৭ই মার্চের ভাষণে সশস্ত্রবাহিনী হয়ে গেছে, গেরিলা যুদ্ধ করছে। আমর বাপ গেরিলা যুদ্ধ করছে, রণাঙ্গনে। মুক্তিযোদ্ধা সংগঠন করছে, ট্রেনিং দিছে, নিজে রণাঙ্গনে যুদ্ধ করছে। সুতরাং আমাদেরকে দুর্বল ভাইবো না।চুপ কইরা বইসা থাকি, সহ্য করি। শুধু দেশের বৃহত্তর স্বার্থে, সংবিধানের স্বার্থ, গণতন্ত্রের স্বার্থে।

ডিএসসিসি মেয়র ব্যারিস্টার শেখ তাপস বলেন, জিগাইলাম, ভাস্কর্য ভাঙ্গছো, কেন ভাংছো ভাই? বলে – ইসলাম। আরে ভাই, ইসলাম কি তোমার একার? মুসলমান কি তুমি একা? খৎনা কি তোমার একার হইছে, আমার হয় নাই? আরে, তোমার বাপ তোমারে পিটাইয়া মাদ্রাসায় পাঠাইছে আর আমি ঘরে বইসা আলিফ, বা, তা, ছা, জিম, হা শিখছি। তোমারে জোর করছে বইলা তুমি শিখছ।

তিনি বলেন, আমার পরিবারের দুজন আধ্যাত্বিক ব্যক্তি এই ভূখন্ডের পদার্পণ করেছিলেন। ইসলামের জন্য, ইসলামের প্রচারের জন্য এই ভূখণ্ডে আসছিলেন। আমার পরদাদা দরবেশ শেখ আব্দুল আউয়াল। ইসলামের জন্য জীবন দিয়ে চলে গেছেন। শেখ বোরহান উদ্দিন, তিনি ছিলেন বিজ্ঞ আলেম, ফরিদপুর এলাকায় আধ্যাত্মিক জগতের স্বনামধন্য আলেমদের একজন। আর জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর যদি ঐশ্বরিক ক্ষমতার না থাকতো তাহলে জাতিকে স্বাধীনতা দিতে পারত না। আর দুই আয়াত মুখস্ত কইরা তুমি হইয়া গেলা বড় আলেম! বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাঙ্গো?

ডিএসসিসি মেয়র বলেন, তোমরা ২১ অগাস্ট ঘটাইছিলা। পরের দিন তো ভাবছিলা – তোমরা পইরা যাবা, শেখ হাসিনা পরতে দেয় নাই। থাকো ২০০৬ আসবে, ২০০৮ আসবে। শেখ হাসিনাকে বুঝতে চেষ্টা করো, মেধা খাটাও, বুদ্ধি খাটাও। ওই লন্ডন থেকে ওহি নাযিল হলে বুদ্ধি-মেধা থাকে না। আর গৃহযুদ্ধের কথা বলে আমাদেরকে!

ব্যারিস্টার শেখ তাপস বলেন, বঙ্গবন্ধু বলেছিলেন, বাঙালি জাতি আমি স্বাধীন করেছি গোলামী করার জন্য না। আজকে আমরা কারো গোলাম না। নিজ টাকায় বানায়। সেটা ৮ হাজার কোটি টাকা লাগুক, ২২ হাজার কোটি টাকা লাগুক, এক লক্ষ কোটি টাকা লাগুক, আমরা নিজ অর্থে দেবো। গর্বের জায়গায় আসতে হবে,যে, আমরা পারি।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মোঃ তাজুল ইসলাম বলেন, বাঙালি ভিক্ষুকের জাতি হিসেবে বেঁচে থাকার জন্য ৩০ লাখ শহীদের রক্তের বিনিময়ে বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে স্বাধীনতা অর্জন করেনি।

স্থানীয় সরকার মন্ত্রী মোঃ তাজুল ইসলাম বলেন, ‘বিএনপি দল ক্ষমতায় এসে পার্লামেন্টে দাঁড়িয়ে বলে দেশে দুর্ভিক্ষ, খাদ্য ঘাটতি থাকলে ভিক্ষা পাওয়া যায়। আর আওয়ামী লীগ সভানেত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা বলেন ভিক্ষুকের জাতি হিসেবে বেঁচে থাকার জন্য ত্রিশ লক্ষ শহীদের রক্তের বিনিময়ে দেশ স্বাধীন করা হয়নি। এদেশের মানুষ নিজেদের আত্মমর্যাদা নিয়ে সারা বিশ্বে মাথা উঁচু করে বাঁচবে’।

বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাঙ্গা প্রসঙ্গে স্থানীয় সরকার মন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যের উপর আঘাত করলে, ভাস্কর্যের বিরোধিতা করে জাতির পিতাকে অসম্মানিত করলে, পুরো জাতির বুকের রক্তক্ষরণ হয়। তাই এধরণের কার্যক্রম দেশের মাটিতে আর করতে দেয়া হবে না। যদি কেউ চেষ্টা করে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশের মানুষ ঐক্যবদ্ধ হয়ে তা মোকাবিলা করবে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

প্রধান অতিথি বলেন, বঙ্গবন্ধুর সারাজীবনের লড়াই-সংগ্রামের ফলে, ত্রিশ লক্ষ শহীদ এবং দুই লক্ষাধিক মা-বোনের সম্ভ্রমের বিনিময়ে এই দেশ স্বাধীন হয়েছে। হাজারো কষ্টের বিনিময় লালিত স্বপ্নের স্বাধীনতা অর্জিত হওয়ার পর বঙ্গবন্ধু যখন দেশে ফিরে আসেন তখন বাঙালি জাতি সেই দুঃখ কষ্ট ভুলে যায়।

স্থানীয় সরকার মন্ত্রী আরো বলেন, ১৯৯৬ সালে শেখ হাসিনা ক্ষমতায় এসে যে উন্নয়নের যাত্রা শুরু করেছিলেন, ২০০১ সালে বিএনপি-জামায়াত ক্ষমতায় এসে আওয়ামী লীগের সে সকল গৃহীত উন্নয়ন কর্মকান্ড বন্ধ করে দেয়। শুধু তাই নয়, স্বাধীনতাবিরোধীদের ক্ষমতায় এনে লাল-সবুজের পতাকাকে কলংকিত করেছে। আওয়ামী লীগকে নিশ্চিহ্ন করতে দেশী-বিদেশী দোসরদের সাথে ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হয়েছে।

স্থানীয় সরকার মন্ত্রী বলেন, স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর-এলজিইডিসহ মন্ত্রণালয়ের অধীনে থাকা সকল প্রতিষ্ঠানে চলমান কার্যক্রমের গুণগত মান এবং রাষ্ট্র পরিপন্থী কাজের সাথে যুক্ত থাকলে কারও সাথে কোন আপোষ করা হবে না। কেউ যদি নিম্নমানের কাজের সাথে, দূর্নীতির সাথে জড়িত থাকে, তাহলে তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে।/ প্রেস বিজ্ঞপ্তি

 


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.


অনুসন্ধান

নামাজের সময়সূচী

  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৩:৫২ পূর্বাহ্ণ
  • ১১:৫৮ পূর্বাহ্ণ
  • ৪:৩৩ অপরাহ্ণ
  • ৬:৪০ অপরাহ্ণ
  • ৮:০৩ অপরাহ্ণ
  • ৫:১৩ পূর্বাহ্ণ

অনলাইন জরিপ

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘বিএনপি এখন লিপসার্ভিসের দলে পরিণত হয়েছে।’ আপনিও কি তাই মনে করেন? Live

  • হ্যাঁ
    25% 3 / 12
  • না
    75% 9 / 12